বৃহস্পতিবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২০, ০৪:১৫ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ খবর :
ঐতিহাসিক শোলাকিয়া ঈদগাহে হবে আল্লামা আযহার আলী আনোয়ার শাহ হুজুরের জানাযা জেলা পর্যায়ে বিজ্ঞান বিষয়ক সেমিনার ও কুইজ প্রতিযোগিতায় কিশোরগঞ্জ টেক্সটাইল মিলস্ আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় চ্যাম্পিয়ন দুই কোটি টাকা অর্থ আত্মসাৎ মামলায় কমলগঞ্জের দলই চা বাগানে প্রাক্তন ব্যবস্থাপকসহ ৩ জন জেলহাজতে সাকিবের শাস্তি কমাতে সংসদে প্রস্তাব, যা বললেন সাংসদ ক্রিকেটে বাজি ধরতে ব্যাংকের ৩ কোটি টাকা হাতিয়েছেন ইনচার্জ শামসুল! ৪ বলে ২ রান করতে পারলো না নিউজিল্যান্ড দুই দিনে হাসপাতাল বানিয়ে ফেললো চীন ! চলে গেলেন আল্লামা আযহার আলী আনোয়ার শাহ আজহারী জামায়াতের প্রোডাক্ট: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

তাঁতের কাজ করে স্বাবলম্বী “আমেরজান”

সালাহউদ্দিন শুভ
  • আপডেট সময় রবিবার, ২৪ নভেম্বর, ২০১৯
  • ২২৬ বার পড়া হয়েছে

মৌলভীবাজার কমলগঞ্জ উপজেলায় মুসলিম এইডের ক্ষুদ্র ঋণের টাকা কাজে লাগিয়ে সফলতা এনেছেন আমেরজান বেগম। তিনি দক্ষিন কুমড়াকাপন গ্রামের মনিপুরী পারায় বসবাস করেন। স্বামী আইনদ্দিন পেশায় একজন অটোরিক্সা ড্রাইভার । ৩ ছেলে নিয়ে তার সংসার। ছেলেরা লেখা পড়া করে। বড়ছেলে এইচ এস,সি তে, দ্বিতীয় ছেলে ৮ম শ্রেনীতে, ছোট ছেলে ক্লাশ ওয়ানে পড়ে। কিন্তু অর্থ সংকটের কারণে মাঝে মাঝে হতাশা প্রকাশ করে অন্যের কাছে। স্বামীর একদিন রোজী হলে তিন দিন বসে খেতে হয়। চিন্তিত হয়ে পরেছেন আমেনা বেগম। কিভাবে সংসার চালাবেন ও ছেলেদের লেখাপড়ার খরচ চালাবেন।

এমতাবস্থায় জানতে পারেন মুসলিম এইড নামে আর্ন্তজাতিক সংস্থার সুদ মুক্ত ঋণ বিতরণের কথা। তখন অন্যের সহযোগীতা নিয়ে আমেরজান বেগম মুসলিম এইড দক্ষিন কুমড়াকাপন গ্রামের মনিপুরী সমিতিতে ভর্তি হন। ভর্তির শুরুতে প্রথমে ১০.০০০ দশ হাজার টাকা ঋণ গ্রহন করেন তা দিয়ে একটি তাঁত ক্রয় করেন। তখন স্বামীকে নিয়ে তাঁতের কাজ করেন এবং কাপড়ের ব্যবসা শুরু করেন। আস্তে আস্তে উন্নতির পথ দেখছেন আমেরজান বেগম। প্রতিমাসে তার আয় হয় ২৫ থেকে ৩০ হাজার টাকা । এমনি ভাবেই ৮ বার ঋণ নিয়ে ব্যবসার পাশা পাশি কৃষিতে মনোনিবেশ করেন। বর্তমানে তিনি ৫ কেয়ার(১৫০শতক) জমিতে কৃষিক্ষেত করেছেন। নিজস্ব ১টি পাকা বাড়ী করেছেন। লাভের অংশের টাকা দিয়ে স্বামীকে বিদেশে পাঠিয়েছেন।
আমেরজান বেগম জানান,‘যে ক্ষুদ্র ঋণের টাকা দিয়ে তাঁতের কাজ করে সুন্দরভাবে সংসার চলছে ,নতুন করে ঘর তৈরী করেছি, এখন আগের তুলনায় আমি অনেক সুখী। বর্তমানে ব্যবসার অবস্থা ভাল তার এগিয়ে যাওয়ার পেছনে মুসলিম এইডের অবদানের কথা তারা স্বীকার করে বলেন, পরবর্তীতে বড় ধরনের অর্থ সহায়তা পেলে অরো ভাল কিছু করতে পারবো ইনশা আল্লাহ।’

মুসলিম এইড কমলগঞ্জ শাখা ব্যবস্থাপক মো: আরশাদুন্নবীর সাথে আলাপকালে তিনি বলেন, ‘মুসলিম এইড আর্ন্তজাতিক সংস্থাটি সুদ মুক্ত ঋণ বিতরণের করে আমেরজানকে সাহায্য করেছি। এবং আমেরজানের মত অনেক মহিলা এই সংস্থাটি থেকে ঋণ নিয়ে স্বাবলম্বী হচ্ছে।’

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর

© All rights reserved © 2019 Onenews24bd.Com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com