সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১, ০৮:৩৯ অপরাহ্ন

বেলকুচিতে বজ্রপাত প্রতিরোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধি ও তালবীজ বপন কর্মসূচি

খন্দকার মোহাম্মাদ আলী, সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় বুধবার, ১৩ অক্টোবর, ২০২১
বেলকুচিতে বজ্রপাত প্রতিরোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধি ও তালবীজ বপন কর্মসূচি

মানুষজাতি সৃষ্টির পর থেকে পৃথিবীতে বেঁচে থাকার জন্য প্রকৃতির বিরূপ আচরণের সাথে খাপ খাইয়ে চলার সংগ্রাম করছে। ঠিক যতটা পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা প্রয়োজন আমরা যেন প্রতিনিয়ত তার বিরুদ্ধে অবস্থান নিচ্ছি যার ফলে পৃথিবী আজ প্রাকৃতিক দুর্যোগে বিপর্যস্ত।

সাম্প্রতিক বছরগুলোতে আমাদের ভাবতে বাধ্য করেছে বজ্রপাত নিয়ে। সিরাজগঞ্জের বেলকুচিতে বজ্রপাত প্রতিরোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধি ও তালবীজ বপন কর্মসূচি পালন হয়েছে।

বুধবার (১৩ অক্টোবর) বেলকুচির সমেশপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে কালের কণ্ঠ শুভসংঘ বেলকুচি শাখা কর্তৃক আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান শিক্ষক শহীদুল ইসলাম আকন্দ এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে ২ দিন ব্যাপী তালবীজ বপন কর্মসূচির উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আনিসুর রহমান। কালের কণ্ঠ শুভসংঘ বেলকুচি শাখার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রিয়াদুল হক ও সাংগঠনিক সম্পাদক নাসিম আহমেদ জানান, সিরাজগঞ্জ নিম্নাঞ্চল/চরাঞ্চল পরিবেষ্টিত একটি জেলা। প্রতিবছর বিভিন্ন প্রাকৃতিক দূর্যোগে এই এলাকার বৃহৎ জনগোষ্ঠী সর্বস্ব হারিয়ে ফেলে। অতি বন্যা,নদী ভাঙ্গন,ঘূর্ণিঝড় এর পাশাপাশি ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে বজ্রপাত। বেলকুচিতে বজ্রপাত প্রতিরোধ জনসচেতনতা বৃদ্ধি ও বৃক্ষরোপণে উৎসাহ প্রদানের লক্ষ্যে আমাদের এই আয়োজন।

 

আমরা বেলকুচির বিভিন্ন স্কুল/কলেজ, গ্রামীণ রাস্তা,ফাঁকা জায়গায় পাঁচ শতাধিক তালবীজ বপন করা হবে। প্রধান অতিথির বক্তব্যে ইউএনও আনিসুর রহমান বলেন, বাংলাদেশ প্রতি বছরই বিভিন্ন প্রাকৃতিক দুর্যোগের কবলে পড়ছে। ভূপ্রকৃতিগত কারণেই বাংলাদেশে প্রাকৃতিক দুর্যোগ প্রায় নিয়মিতভাবে ঘটে। কালবৈশাখী, ভূমিকম্প, বন্যা এসব দুর্যোগ মানুষের ক্ষতি করেই চলেছে। তবে অনেক প্রাকৃতিক দুর্যোগের মধ্যে সাম্প্রতিক বছরগুলোতে আমাদের ভাবতে বাধ্য করেছে বজ্রপাত।

প্রতি বছরই বজ্রপাতে অসংখ্য মানুষের মৃত্যু ঘটছে। সেই তালিকায় ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে সিরাজগঞ্জ জেলা। বজ্রপাত প্রতিরোধে জনসচেতনতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ পাশাপাশি বিভিন্ন সংগঠন সহ ব্যাক্তি পর্যায়ে বৃক্ষরোপণে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। কালের কণ্ঠ শুভসংঘ বেলকুচি শাখা কে আন্তরিক ধন্যবাদ তালবীজ বপনের মতো সময়োপযোগী কর্মসূচি গ্রহণের জন্য। বাংলাদেশ প্রতি বছরই বিভিন্ন প্রাকৃতিক দুর্যোগের কবলে পড়ছে। ভূপ্রকৃতিগত কারণেই বাংলাদেশে প্রাকৃতিক দুর্যোগ প্রায় নিয়মিতভাবে ঘটে। কালবৈশাখী, ভূমিকম্প, বন্যা এসব দুর্যোগ মানুষের ক্ষতি করেই চলেছে।

প্রতি বছরই বজ্রপাতে অসংখ্য মানুষের মৃত্যু ঘটছে। যদিও বিশ্বে সবচেয়ে বেশি বজ্রপাত ঘটে ভেনিজুয়েলা ও ব্রাজিলে। কিন্তু বজ্রপাতে মৃত্যুর সংখ্যায় বাংলাদেশ এগিয়ে। জাপানের জিওগ্রাফিক ইনফরমেশন সিস্টেমের তথ্যে যশোর, সিরাজগঞ্জ, ঠাকুরগাঁও, লালমনিরহাট, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, নেত্রকোনা, কিশোরগঞ্জ, মৌলভীবাজার ও সুনামগঞ্জ এলাকায় বজ্রপাতে বেশি মানুষের মৃত্যু ঘটছে।

চলতি বছরে শুধু সিরাজগঞ্জেই বজ্রপাতে মৃত্যু হয়েছে ২৪ জনের। পরিবেশ বিজ্ঞানীরা বলছেন, বৈশ্বিক উষ্ণায়নের কারণে বাংলাদেশে দশমিক ৭৪ শতাংশ তাপমাত্রা বেড়েছে। যার ফলে বিভিন্ন প্রাকৃতিক দূর্যোগে উচ্চ ঝুঁকিতে রয়েছে বাংলাদেশ। গ্রামেগঞ্জে প্রচুর পরিমাণে তালগাছ ও নারিকেল গাছ থাকলে সেগুলো বজ্র নিরোধক হিসেবে কাজ করতে পারে।

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চৌহালী উপজেলা  সহকারী কমিশনার (ভূমি) তানজিল পারভেজ , বেলকুচি উপজেলা প্রকৌশলী রইসুল আরেফিন, সমাজসেবা কর্মকর্তা, ইলিয়াস হাসান শেখ, নিউজ জি এর সিরাজগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি খন্দকার মোহাম্মদ আলী, কালের কণ্ঠ শুভসংঘ বেলকুচি শাখার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, রিয়াদুল হক, সাংগঠনিক সম্পাদক নাসিম আহমেদ, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক রাকিবুল হাসান, দপ্তর সম্পাদক মোহাম্মদ নাসিম, প্রচার সম্পাদক আজমীর হোসেন সাদ, কার্য নির্বাহী সদস্য তাসলিমা খাতুন, আরিফুল ইসলাম, খাদিজা খাতুন প্রমুখ।

Tahmina Dental Care

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

এই বিভাগের আরো খবর

© All rights reserved © 2021 Onenews24bd.Com
Site design by Le Joe
%d bloggers like this: